logo
news image

প্রাণ দিয়ে সন্তানকে বাঁচালেন মা

প্রতিনিধি, নাটোর (লালপুর)
সন্তানকে বাঁচাতে ট্রাকের চাকায় পিষ্ট প্রাণ দিলেন মা।  শনিবার (৩১ জুলাই ২০২১) বিকেলে উপজেলার লালপুর-আব্দুলপুর সড়কের সালামপুর শেরপাড়া নামক স্থানে এ ঘটনা ঘটে।
উপজেলার মোহরকয়া খাঁপাড়া গ্রামের নুর মোহম্মদের ছেলে মামুনুর রশিদের স্ত্রী তিনি। রাজশাহীর বাঘার কাকড়ামারী গ্রামের আইনাল হোসেনের মেয়ে।
নিহতের স্বামী মানুর রশিদ জানান, তিনি স্ত্রী রুবিয়ারা খাতুন মুন্নী (২৮), দুই সন্তান মাহিম (৭) ও মাইশাকে (৭ মাস) নিয়ে মোটরসাইকেলে আব্দুলপুরে খালার বাড়িতে যাচ্ছিলেন। পথিমধ্যে উপজেলার লালপুর-আব্দুলপুর সড়কের নর্থ বেঙ্গল চিনিকলের আখ ক্রয় কেন্দ্রের নিকট শেরপাড়া এলাকায় বিপরীত দিকে থেকে আসা একটি বালু বহনকারী খালি ট্রাক তাদের মোটরসাইকেলকে ধাক্কা দেয়।  এ সময় শরীরের নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ছিটকে পড়েন। কোলে থাকা শিশু সন্তানকে বাঁচাতে নিজে ট্রাকের চাকায় পিষ্ট হন। স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে লালপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষনা করেন। এ সময় শিশু মাইশা সামন্য সামান্য আঘাত পায়। অন্যদের কোন ক্ষতি হয়নি। ঘাতক ট্রাকটিকে স্থানীয় লোকজন আটক করলেও চালক পালিয়ে যায়।
উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. সাদিয়া আফরিন বিশ্বাস লিজা বলেন, মুন্নীর মাথার বাম পাশ ট্রাকের চাকায় পিষ্ট হয়ে ঘটনাস্থলে মারা যান।
মোহরকয়া ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ মো. ইসমত হোসেন বলেন, শনিবার রাত সাড়ে ৯ টায় মোহরকয়া কবরস্থানে তার দাফন সম্পন্ন হয়েছে।
নির্মানাধীন ওই রাস্তার ঠিকাদার নাটোর সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান রমজান আলী এ ঘটনায় দুঃখ প্রকাশ করে বলেন, আগামী মঙ্গলবার নিহতের বাড়িতে সমবেদনা জানাতে আসবেন।
প্রত্যক্ষদর্শী স্থানীয় এ কে এম আনোয়ারুল হক বলেন, রাস্তার নির্মাণ কাজের ট্রাকের ধাক্কায় ঘটনাস্থলেই মুন্নী মারা যান। তারা উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠান।
লালপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ফজলুর রহমান বলেন, ঘাতক ট্রাকটি আটক করা হয়েছে।

সাম্প্রতিক মন্তব্য

Top