logo
news image

জয় নিয়ে শিরোপার স্বপ্ন উজ্জ্বল আবাহনীর রেকর্ড

ম্যাচের শুরুতে ব্যাট হাতে রেকর্ডগড়া নৈপুণ্যে প্রাইম দোলেশ্বরকে অসম্ভব এক টার্গেটই দিয়েছিল আবাহনী লিমিটেড। কিন্তু ম্যাচের দ্বিতীয় ভাগে স্বস্তি ছিল না আবাহনীর। শেষে শিরোপাপ্রত্যাশী দলটির জন্য স্বস্তি নিয়ে আসে বৃষ্টি। আর বৃষ্টি আইনে জয় নিয়ে শিরোপার স্বপ্ন উজ্জ্বল রইলো তাদের। ঢাকা প্রিমিয়ার ডিভিশন ক্রিকেট লীগে গতকাল প্রাইম দোলেশ্বর স্পোর্টিং ক্লাবের বিপক্ষে বৃষ্টি আইনে ২০ রানে জয় দেখে আবাহনী লিমিটেড। বাংলাদেশ ক্রীড়া শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের (বিকেএসপি-৩) মাঠে আগে ব্যাটিং শেষে আবাহনীর সংগ্রহ পৌঁছে ৩৯৩/৪-এ।

বাংলাদেশের ঘরোয়া লিস্ট ‘এ’ ক্রিকেটে এটি দলীয় সর্বোচ্চ রানের রেকর্ড। ব্যাট হাতে জোড়া সেঞ্চুরি হাঁকান আবাহনীর ওপেনার এনামুল হক বিজয় ও নাজমুল হোসেন শান্ত। ওপেনিংয়ে ২৩৬ রানের জুটি গড়েন এ দুজন। চলতি আসরের যে কোনো উইকেট জুটিতে এটি সর্বোচ্চ রানের রেকর্ড। জবাবে জোড়া সেঞ্চুরি হাঁকান প্রাইম দোলেশ্বরের অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান ফজলে মাহমুদ ও মার্শাল আইয়ুব। চতুর্থ উইকেটে এ দুজন গড়েন ২০৪ রানের জুটি। এতে ৩০ ওভার শেষে দোলেশ্বরের সংগ্রহ পৌঁছে ২১৭/২-এ। কিন্তু এ সময় বৃষ্টিতে বন্ধ হয়ে যায় খেলা। পরে খেলা শুরু হলেও ডাকওয়ার্থ-লুইস পদ্ধতিতে দোলেশ্বরের লক্ষ্য দাঁড়ায় ৩৫ ওভারে ২৭৮ রানের। কিন্তু ৩৪.১তম ওভারে ফের বৃষ্টিতে বন্ধ হয়ে যায় খেলা। জয় পেতে হলে এ সময় দোলেশ্বরের দরকার ছিল ২৬৫ রানের। তবে এ সময় দোলেশ্বরের সংগ্রহ ছিল ২৪৪/৩। এতে বৃষ্টি আইনে ২০ রানে জয় দেখে আবাহনী। আসরে ১৪ ম্যাচে ২০ পয়েন্ট নিয়ে তালিকার শীর্ষ স্থান ধরে রেখেছে আবাহনী লিমিটেড। সমান ম্যাচে প্রাইম দোলেশ্বরের সংগ্রহ ১৫ পয়েন্ট।

সংক্ষিপ্ত স্কোর
টস: আবাহনী, ব্যাটিং
আবাহনী: ৫০ ওভার; ৩৯৩/৪ (বিজয় ১২৮, শান্ত ১২১, বিহারি ৬৬, মিঠুন ৪৭, সালাউদ্দিন ২/৮১)।
দোলেশ্বর: ৩৪.১ ওভার; ২৪৪/৩ (মার্শাল ১০৮*, মাহমুদ ১০০, লিটন ১৪, তাসকিন ৩/৬২)।
ফল: বৃষ্টি আইনে আবাহনী ২০ রানে জয়ী
ম্যাচসেরা: এনামুল হক বিজয় 

কমেন্ট করুন

...

সাম্প্রতিক মন্তব্য

Top