logo
news image

ঈশ্বরদীতে গলায় গামছা পেচিয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যা

ঈশ্বরদী (পাবনা) সংবাদদাতাঃ
ঈশ্বরদীতে গলায় গামছা পেচিয়ে শ্বাসরোধ করে দিনাজ (৪৫) নামে এক যুবককে হত্যা করেছে দূর্বৃত্তরা। আজ রবিবার (১৯ এপ্রিল) সকাল ৬টায় মুলাডুলি ইউনিয়নের গোয়ালবাথান গ্রামের হায়দার মাষ্টারের পারিবারিক কবরস্থানের পাশে জঙ্গলের মধ্য থেকে পুলিশ এই মরদেহ উদ্ধার করে। নিহত দিনাজ দাশুড়িয়া ইউনিয়নের সুলতানপুর গ্রামের মৃত হামিজ উদ্দিন প্রামানিকের ছেলে। ঈশ্বরদী থানার অফিসার ইনচার্জ বাহাউদ্দিন ফারুকী ঘটনা নিশ্চিত করেছেন।
মুলাডুলি ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ডের মেম্বার ওয়াসিম জানান, সকাল ৬টায় গোয়ালবাথান গ্রামের হায়দার মাষ্টারের পারিবারিক কবরস্থানের পাশের বাাড়ির জনৈক মহিলা মরদেহটি দেখতে পেয়ে মুঠোফোনে আমাকে জানায়। এসময় স্থানীয়রা সনাক্ত করেনে মৃতদেহটি সুলতানপুর গ্রামের দিনাজ নামের এক যুবকের। মরদেহের গলায় গামছা পেচানো রয়েছে। শ্বাসরোধ করে দিনাজকে হত্যার পর হত্যাকারীরা  এখানে মরদেহ ফেলে রেখে গেছে তিনি ধারণা করছেন।
সুলতানপুর গ্রামের সুজন দেওয়ান জানান, দিনাজ প্রামানিক দীর্ঘদিন প্রবাসে ছিল। তিন বছর আগে সে বাড়িতে এসেছে। বর্তমানে পারিবারিক জমিজমা দেখাশুনা করতো। তাকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে এ খবর শুনে এলাকার লোকজন হতভম্ব হয়ে পড়েছেন।  
ঈশ্বরদী থানা পুলিশ দিনাজ প্রামানিকের মরদেহ  উদ্ধার করেছে। ঈশ্বরদী সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ফিরোজ করিব ও থানার অফিসার ইনচার্জ বাহাউদ্দিন ফারুকী ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।
অফিসার ইনচার্জ বাহাউদ্দিন ফারুকী জানান, শ্বাসরোধ করেই দিনাজকে হত্যা করা হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। মরদেহ ময়না তদন্তের পর প্রকৃত কারণ জানা যাবে। হত্যার সাথে জড়িতদের গ্রেফতারের জন্য পুলিশী তৎপরতা শুরু হয়েছে।

সাম্প্রতিক মন্তব্য