logo
news image

‘রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্পে অগ্নিকান্ড মুল প্লান্ট সম্পর্কিত নয় ’

ঈশ্বরদী (পাবনা) সংবাদদাতাঃ
শুক্রবার রূপপুর পারমাণবিক প্রকল্পে অগ্নিকান্ডের ঘটানা মূল প্লান্টের সাথে কোন সম্পর্ক নেই বলে জানিয়েছেন প্রকল্পের পরিচালক ড. সৌকত আকবর। অগ্নিকান্ডের পর প্রকল্পের পক্ষ হতে কি ব্যবস্থা গ্রহন করা হযেছে, এ বিষয়ে শনিবার সকালে ফোনে প্রদত্ত সাক্ষাতকারে তিনি জানান. কুলিং টাওয়ার-২ এর কাছে একটি সাব ঠিকাদরী প্রতিষ্ঠানের অফিস নির্মাণের জন্য ওয়েল্ডিং কাজের সময় বৈদ্যুতিক সর্ট সার্কিট হতে একটি কনটেইনারে আগুন লাগে। এটি প্রকল্পের মূল প্লান্টের কাজের অংশ নয়। প্রকল্পের নিজস্ব ফায়ার সার্ভিস দ্রুত আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। এঘটনায় মূল প্লান্টের কোন কিছুই ক্ষতিগ্রস্থ হযনি বলে তিনি জানিযেছেন।
পিডি ড. সৌকত আরো জানান, চুক্তিতে সকল প্রকার ইন্ডাষ্ট্রিয়াল ও ফায়ার সেফটির দায়িত্ব ঠিকাদারের। তাই ঘটনার সাথে সাথে (শুক্রবার)  রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্পের পক্ষ হতে মূল ঠিকাদার  রাশিয়ার এটমষ্ট্রয় এক্সপোর্টের ভাইস প্রেসিডেন্ট বরাবরে লিখিতভাবে চিঠি পাঠানো হয়েছে। চিঠিতে অতি দ্রুত ঘটনার তদন্ত ও প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য বলা হযেছে বলে তিনি নিশ্চিত করেছেন। এছাড়াও দেশের সর্ববৃহত এই প্রকল্পের সুনাম রক্ষার কথা উল্লেখ করে প্রেরিত চিঠিতে টেকনিক্যাল এবং ইনস্টিটিউশন ব্যবস্থা আরা জোরদার  এবং ভবিষ্যতে যাতে এ ধরণের ঘটনার পুনরাবৃত্তি না ঘটে এবিষয়ে সতর্ক করা হযেছে।
ঘটনার পর হতে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রী স্থপতি ইয়াফেস ওসমান সার্বক্ষনিকভাবে খোঁজ খবর রাখছেন জানিয়ে পিডি বলেন, প্রকল্পের পক্ষ হতেও কমিটি গঠন করে তদন্ত করা হবে। এব্যাপারে আগামী ১৭ আগষ্ট মন্ত্রীর নের্তৃত্বে প্রকল্প এলাকা ঈশ্বরদীর রূপপুরে ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান এটমষ্ট্রয় একসপোর্টের সাথে জরুরী ভিত্তিতে সভার আহব্বান করা হযেছে বলে তিনি জানিয়েছেন।
প্রসঙ্গত: রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্পের কনটেইনার আগুন লাগার ঘটনা ৯  ও ১০ আগষ্ট বিভিন্ন অনলাইন আগষ্ট প্রিন্ট ভার্সনে প্রকাশিত হয়।

কমেন্ট করুন

...

সাম্প্রতিক মন্তব্য