logo
news image

সরকারি বাহিনীর বিমান হামলায় সিরিয়ায় নিহত ৯৭

অনলাইন ডেস্ক: সিরিয়ার রাজধানী দামেস্কের নিকটবর্তী বিদ্রোহী-নিয়ন্ত্রিত এলাকা পূর্ব গৌতায় সরকারি বাহিনী ও তাদের মিত্রদের বিমান হামলা ও গোলাবর্ষণে ২৪ ঘণ্টারও কম সময়ের মধ্যে ২০ শিশুসহ অন্তত ৯৭ বেসামরিক নাগরিক নিহত হয়েছেন বলে জানিয়েছে একটি পর্যবেক্ষক গোষ্ঠী। আহত হয়েছেন আরও প্রায় ৩২৫ জন।

সিরিয়ার মানবাধিকার পর্যবেক্ষণকারী ব্রিটিশ সংস্থা সিরিয়ান অবজারভেটরি ফর হিউম্যান রাইটস (এসওএইচআর)-এর বরাত দিয়ে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম রয়টার্স জানিয়েছে, অবরুদ্ধ দামাস্কাসের ঘৌটা এলাকায় বিমান ও রকেট হামলায় এ হতাহতের ঘটনা ঘটে।

এদিকে সেনাবাহিনীর তরফ থেকে এখন পর্যন্ত অভিযান নিয়ে কোন মন্তব্য করা হয়নি। তবে দামাস্কাসের প্রশাসন বলছে, জঙ্গীদের লক্ষ্য করে এ হামলা চালানো হয়েছিল।

সিরিয়ার রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম জানিয়েছে, জঙ্গিগোষ্ঠীগুলো দামাস্কাসে মর্টার হামলা চালিয়ে একশিশু নিহত ও আটজন আহত হওয়ার পর তারা জঙ্গিদের লক্ষ্য করে বিমান হামলা চালায়। এতে এ হতাহতের ঘটনা ঘটে।

সিরিয়ান অবজারভেটরির প্রতিবেদনে বলা হয়, রোববার ইস্টার্ন ঘৌটার আবাসিক এলাকায় বিমান হামলা শুরু করে সরকারি বাহিনী। পুনর্দখল নিতে বড় ধরনের স্থল অভিযানেরও প্রস্তুতি নিচ্ছে তারা। সিরিয়ান অবজারভেটরির দাবি, রোববার থেকে শুরু হওয়া বিমান হামলায় ২৪ ঘণ্টারও কম সময়ের মধ্যে বিপুল সংখ্যক মানুষ হতাহত হয়েছে

জানা গেছে, দামাস্কাসের নিকটবর্তী ইস্টার্ন ঘৌটায় প্রায় চার লাখ মানুষ বাস করেন। ২০১৩ সাল থেকে এলাকাটি বিদ্রোহীদের দখলে রয়েছে। সিরিয়া ও ইরাকে আইএসের পতন শুরু হওয়ার পর ওই এলাকাটি পুনর্দখল করতে চলতি মাসের শুরুর দিকে অভিযান শুরু করে আসাদ বাহিনী।

এ অভিযানে শত শত বেসামরিক নাগরিকের মৃত্যু হয়েছে। এদিকে সেখানে মানবিক বিপর্যয় নেমে আসায় বেশ কিছু দিন আগে অস্ত্র বিরতিতে পৌঁছায় দুই দল। তবে আইএসের চলমান পরাজয়ের ফলে, সরকারি বাহিনী অস্ত্র-বিরতি ভঙ্গ করে এলাকাটি পুনর্দখলে হামলা শুরু করে। 

ইস্টার্ন ঘৌটার সব আবাসিক এলাকায় ভারি বোমা বর্ষণ করা হয়েছে।

সাম্প্রতিক মন্তব্য

Top