logo
news image

সাস্ট ক্লাব নির্বাচন: যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক পদ প্রার্থীদের প্রত্যাশা

নিজস্ব প্রতিবদেক।  ।  
আগামী ১৯ জুলাই শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের সংগঠন সাস্ট ক্লাব লিমিটেডের কার্যনির্বাহী কমিটির নির্বাচন। রাজধানীর নিকেতনে ক্লাবের কার্যালয়ে ওই দিন বিকেল ৩.০০ টা থেকে সন্ধ্যা ৭.০০ টা পর্যন্ত ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। সাস্ট ক্লাবের নির্বাচনে ১১টি পদে মোট ২৩ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক পদে নির্বাচন করছেন শাহ মো. হামজা আনোয়ার (০০০৬) ও মোহাম্মদ আফজাল হোসেন আকন্দ রনি (০০২৫)।
যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক পদ প্রার্থীদের প্রত্যাশা-
শাহ মো. হামজা আনোয়ার (০০০৬):
শাহ মোহাম্মদ হামজা আনোয়ার বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের ৮ম ব্যাচের (১৯৯৭-৯৮) অর্থনীতি বিভাগে অধ্যায়ন করেছি। বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যায়ন কালে আমি যথাক্রমে Rim Musical Club এর 'ব্যান্ড লিডার' হিসাবে এবং পরবর্তীতে 'শিকড়' এর সভাপতি হিসেবে দায়িত্ত পালন করেছি। আমি London Metropolitan University, UK থেকে অর্থনীতি বিভাগে মাস্টার্স ডিগ্রি অর্জন করি এবং মনিপুর হাই স্কুল ও ঢাকা সিটি কলেজ থেকে যথাক্রমে এস,এস,সি ও এইচ,এস,সি সম্পাদন করি। কর্ম জীবনে আমি সিলেট মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটি তে অ্যাসিস্ট্যান্ট প্রফেসার হিসেবে কর্মরত আছি। সেইসাথে, আমার প্রতিষ্ঠান 'দেশি কারাওকে'র একজন ডাইরেক্টর হিসেবেও কাজ করছি। সম্মানিত সদস্যবৃন্দ, আপনারা হয়তো অবগত আছেন, আমি সাস্ট ক্লাব লিমিটেডের আসন্ন নির্বাচনে Joint General Secretary পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছি। নির্বাচন কে ঘিরে ক্লাব সদস্যদের মধ্যে প্রার্থীদের কাছ থেকে তাদের করনীয় সম্পর্কে জানার যে আগ্রহ তৈরি হয়েছে, তার পরিপ্রেক্ষিতে ক্লাব কে নিয়ে আমার ভবিষ্যৎ করনীয় ও পরিকল্পনা আপনাদের সদয় অবগতির জন্য পেশ করছি। উল্লেখ করতে চাই, যেহেতু কমিটির মেয়াদকাল মাত্র ১ বছর, তাই বর্ণিত করনীয় বিষয়গুলোর অনেকগুলোই এই সল্প সময়ের মধ্যে বাস্তবায়ন করা সম্ভব না, কিন্তু শুরু করা অবশ্যই সম্ভব। আর শুরু করতে পারলে তা একদিন না একদিন শেষ হবেই। তাই শুরু করাকেই গুরুত্ব দিচ্ছি। নির্বাচিত হলে যে বিষয়গুলো তে গুরুত্ব দিতে চাই -
১। ক্লাবের প্রত্যেক মেম্বার ও তাদের পরিবারের সদস্যদের জন্য হেলথ ইন্সুরেন্স চালু করা।
২। ক্লাবের সদস্যদের মতামতের ভিত্তিতে সকলের জন্য সুবিধাজনক একটি স্থানে ক্লাবের অফিস কে স্থানান্তর করা।
৩। বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রত্যেক ব্যাচ থেকে এবং প্রত্যেক ডিপার্টমেন্ট থেকে একজন করে প্রতিনিধি নির্ধারণ করে একটি কন্সাল্ট্যান্ট গ্রুপ তৈরি করা এবং তাদের সাথে নিয়মিত আলোচনার মাধ্যমে ক্লাবের উন্নয়ন তদারকি কিংবা জরুরী কোন বিষয়ের সিদ্ধান্ত গ্রহন করা।
৪। শাবিপ্রবির সকল ছাত্রছাত্রীদের কল্যাণে একটি আলাদা সেন্ট্রাল ফান্ডের ব্যাবস্থা করা। এই ফান্ডের মাধ্যমে তাদের চিকিৎসা সহায়তা সহ অন্যান্য প্রয়োজনীয় সহায়তার একটি স্থায়ী ব্যাবস্থা করা।
৫। ক্লাবের জন্য নিজস্ব ভবন নির্মাণের লক্ষে রাজউক কতৃক অথবা সরকারি একটি প্লট বরাদ্দ প্রাপ্তির নিরিখে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহন করা।
৬। ক্লাবের সকল সদস্যদের আবাসিক সমস্যা নিরসনে ঢাকা শহরের অভ্যন্তরে সাস্ট ক্লাব লিমিটেডের সকল সদস্যদের জন্য আবাসিক এপার্টমেন্ট কমপ্লেক্স নির্মাণের পরিকল্পনা গ্রহন করা।
৭। ক্লাবের সঞ্চয় বাড়াতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহন করা ও জমাকৃত সঞ্চয়ের সঠিক ব্যাবহার নিশ্চিত করা।
৮। পরিবর্তিত স্থানে ক্লাবের সদস্যদের জন্য জরুরি ভিত্তিতে একটি পাঠাগার, একটি মানসম্মত রেস্টুরেন্ট ও একটি ব্যায়ামাগার চালু করা।
৯। সাস্ট ক্লাব লিমিটেড কে সাস্টিয়ানদের মিলনমেলা ও তাদের পরিবারের সদস্যদের বিনোদনের কেন্দ্রবিন্দু তে পরিনত করার লক্ষে নিয়মিত খেলাধুলা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও পারিবারিক ইভেন্ট এর বছর ব্যাপী কার্যক্রম গ্রহন করা।
১০। By-law তে উল্লেখিত সকল Sub Committee গুলোকে গঠিত করা এবং তাদের দায়িত্ত ও কর্তব্য গুলো যথাযথ ভাবে পালনে সর্বাত্মক সহায়তা করা।
১১। অন্যান্য প্রফেশনাল ক্লাবের আফিলিয়েশান তথা মেম্বারশিপ এম.ও.ইউ এর ক্ষেত্রে উদ্যোগ গ্রহণ করা।
মোহাম্মদ আফজাল হোসনে আকন্দ রনি (০০২৫):
যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক পদপ্রার্থী মোহাম্মদ আফজাল হোসনে আকন্দ রনি সাস্টের ১১তম ব্যাচ ও বিবিএ ৩য় ব্যাচের ছাত্র (২০০০-২০০১)। তিনি ২০০০ সালে নটরডেম কলেজ থেকে এইচএসসি পাশ করেন।
ক্যাম্পাসে বিবিএ এসোসিয়েশনের সাংগঠনিক সম্পাদক (২০০৪-০৫), ১১তম ব্যাচের র্যা গ ফেস্ট এর কোষাধ্যক্ষ (২০০৬) ছিলেন। বিবিএ এলামনাই এসোসিয়েশনের প্রতিষ্ঠাতা সাধারণ সম্পাদক (২০১৭-২০১৮), জাপানের নিপ্পন ফাউন্ডেশন কর্তৃক আয়োজিত Building a Better Asia: Future Leaders Dialogue program, Beiging University অংশগ্রহণ করেন।
তিনি NSU থেকে এমবিএ করেন। বর্তমানে বাংলাদেশ ব্যাংকে যুগ্ম পরিচালক হিসেবে কর্মরত।
২০১০ সালে SUSTian Platform, ২০১২ সালে SUST Club গঠনের উদ্যোগ, ২০১৮ সালে SUST Club গড়তে সদস্য মনোনীত, Companies act e SUST Club Limited এর Guarantor and First EC এর সদস্য। তিনি বাংলাদেশ ব্যাংক Officers Welfare Association এর নির্বাচিত সদস্য ছিলেন।
তিনি সাস্ট ছাত্রলীগের যুগ্ম সম্পাদক (২০০৩-২০০৮), RIM Musical Club  এর সদস্য, স্বাধীনতা ব্যাংকার্স পরিষদ, বাংলাদেশ ব্যাংক ইউনিটের সাধারণ সম্পাদক।
প্রত্যাশা:
১। সবাই মিলে মিশে চলা।
২। ক্লাবকে এলিট ক্লাব থেকে সবার প্রাণের ক্লাবে পরিনত করা।
৩। সবার অধিকার নিশ্চিত করা।
৪। Building A Better SUST club. সুবিন্যাস্ত ও পরিচ্ছন্ন ক্লাব গড়া।
৫। ক্লাবের যে কোন বড় সিদ্ধান্ত সবার সাথে আলাপ করে মঙ্গলের জন্য করা।
৬। ক্লাবের অবস্থান গণপরিবহন ও মেট্রোরেলের ২০০-৩০০ মিটারের মধ্যে করা।
৭। সদস্যদের বাচ্চাদের জন্য কিডস ক্লাব বা কিডস জোন করা।
৮। সেমিনার ও মিটিং রুম করে বাণিজ্যিকভাবে আয় বৃদ্ধি করা।
৯। স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা নিশ্চিত করা। ক্লাবের মুখপত্র নির্ধারণ করা।
১০। সদস্য বৃদ্ধিতে কাজ করা। একটি প্লাটফর্ম দাড় করানো।

কমেন্ট করুন

...

সাম্প্রতিক মন্তব্য

Top