logo
news image

শেখ হাসিনার ট্রেনবহরে গুলি বর্ষণের মামলার রায়ে সহোদর ৩ ভাইয়ের মৃত্যুদন্ডাদেশ

ঈশ্বরদী (পাবনা) সংবাদদাতাঃ
২৫ বছর পর ঈশ্বরদীর বহুল আলোচিত শেখ হাসিনার ট্রেনবহরে গুলিবর্ষণের মামলার রায়ে সহোদর তিন ভাইয়ের মৃত্যুদন্ডের আদেশ দেয়া হয়েছে। বুধবার পাবনার স্পেশাল ট্রাইবুনালের অতিরিক্ত দায়রা জজ আদালত-১ এর ভারপ্রাপ্ত বিচারক রুস্তম আলী এ রায় ঘোষণা করেন। রায়ে ৫২ জন আসামীর মধ্যে যে ৯ জনের মৃত্যুদন্ডাদেশ দেয়া হয়, তাদের মধ্যে আপন তিন ভাই রয়েছে। তিন ভাইয়ের মৃত্যুদন্ডােেশর বিষয় নিয়ে গত ২দিন ঈশ্বরদীর বিভিন্ন মহলে ব্যাপক আলোচনা চলছে।
মৃত্যুদন্ডপ্রাপ্ত তিন ভাইদের মধ্যে রয়েছেন, ঈশ্বরদী পৌর বিএনপির সাবেক সভাপতি ও সাবেক মেয়র মকলেছুর রহমান বাবলু, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ছাত্রদল নেতা মাহবুবুর রহমান পলাশ ও ঈশ্বরদী উপজেলা ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি ও ঈশ্বরদী সরকারি কলেজের সাবেক ভিপি রেজাউল করিম শাহীন।
বিএনপি নেতা মকলেছুর রহমান বাবলু ১৯৯২ -৯৭, ২০০৬-১১ এবং ২০১১-১৬ সাল পর্যন্ত তিন দফায় ঈশ্বরদী পৌরসভার নির্বাচিত চেয়ারম্যান ও মেয়র ছিলেন।  ১৯৯৪ সালে তৎকালীন বিরোধী দলীয় নেত্রী ও বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ট্রেনবহরে হামলার সময় তিনি চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করছিলেন। ঈশ্বরদীর শেরশাহ রোডের মরহুম আফসার আলীর ৬ পুত্রের মধ্যে অনেক আগেই মারা যায় এক ভাই। সাজাপ্রাপ্ত তিন ভাইয়ের মধ্যে মকলেছুর রহমান বাবলু জেষ্ঠ্য, মাহবুবুর রহমান পলাশ মেজ এবং রেজাউল করিম শাহীন সেজ।
উল্লেখ্য, বুধবার ঈশ্বরদীর বহুল আলোচিত ট্রেনবহরে গুলিবর্ষণের মামলার রায়ে ৫২ জন আসামীর মধ্যে  ৯ জনের মৃত্যুদন্ড, ২৫ জনের যাবজ্জীবন এবং ১৩ জনকে ১০ বছরের কারাদন্ড প্রদান করা হয়েছে। এর মধ্যে ৫ জন ইতোমধ্যেই মৃত্যু বরণ করেছেন। সাজাপ্রাপ্ত আসামীদের মধ্যে ৩৩ জন কারাগারে এবং ১৪ জন পলাতক রয়েছে। 

কমেন্ট করুন

...

সাম্প্রতিক মন্তব্য