logo
news image

অবৈধভাবে বালু উত্তোলনকারীদের হামলায় বাঘায় ম্যাজিস্ট্রেট লাঞ্ছিত

নিজস্ব প্রতিবেদক, বাঘা (রাজশাহী)।  ।  
রাজশাহীর বাঘায় অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের অভিযোগের প্রেক্ষিতে পরিদর্শনে গেলে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট, সহকারী ভূমি কমিশনার (ভূমি) ও তার নিরাপত্তাকর্মীকে পিটিয়ে জখম করে বালু উত্তোলনকারীরা। পরে তাদেরকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।
শনিবার (১৯ জানুয়ারি) বেলা সাড়ে ১২টার দিকে উপজেলার আলাইপুর-হরিরামপুর বালু ঘাটে এ ঘটনা ঘটে।
জানা যায়, উপজেলার আলাইপুর-হরিরামপুর পদ্মা নদীতে স্থানীয় নওশাদ আলী ও তার লোকজন দীর্ঘদিন থেকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করে আসছিলেন। এ বিষয়ে স্থানীয়রা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও সহকারী কমিশনার (ভূমি)’র কাছে অভিযোগ করেন। অভিযোগের প্রেক্ষিতে শনিবার বেলা সাড়ে ১২টার দিকে ঘটনাস্থল পরিদর্শনে যান এসিল্যান্ড। এ সময় হরিরামপুর গ্রামের মোজাহার হোসেনের ছেলে নওশাদ আলী ও তার ৩০/৪০ জনের বাহিনী তাদের ওপর হামলা করে। এতে সহকারী কমিশনার পি এম ইমরুল কায়েস গুরুতর আহত হন। এ সময় তার নিরাপত্তাকর্মী কলিন্স বাধা দিতে আসলে তাকেও মারপিট করা হয়। হামলায় উভয়েরই মাথা ও নাক ফেটে যায়। পরে তাদেরকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।
উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আশরাফুল ইসলাম বাবুল দুঃখ প্রকাশ করেন এবং দোষীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান। ঘটনার পর বিকেল সাড়ে ৩টায় ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন জেলা প্রশাসক এস এম আব্দুল কাদের, জেলা পুলিশ সুপার (এসপি) শহিদুল ইসলাম।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শাহিন রেজা বলেন, অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের অভিযোগের কারনে পরিদর্শনে গিয়েছিল এসিল্যান্ড। এ সময় অতর্কিতভাবে হরিরামপুর গ্রামের নওশাদ আলী নামের এক ব্যক্তি হামলা চালিয়ে এসিল্যান্ড ও তার নিরাপত্তাকর্মীকে মারপিট করে আহত করেছে। এসিল্যান্ডের ব্যবহৃত মোবাইল ফোন কেড়ে নিয়েছে তারা। এ বিষয়ে মামলা করার প্রস্তুতি চলছে।
বাঘা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মহসীন আলী জানান, বিষয়টি জানার পর তাৎক্ষণিকভাবে ঘটনাস্থলে গিয়ে কাউকে পাওয়া যায়নি। তবে ঘটনার সাথে জড়িতদের গ্রেফতারে অভিযান চলছে।

কমেন্ট করুন

...

সাম্প্রতিক মন্তব্য

Top