logo
news image

বড়াইগ্রামে ভুল চিকিৎসায় প্রসূতির মৃত্যুতে ক্লিনিক সিলগালা আটক ১

নিজস্ব প্রতিবেদক, বড়াইগ্রাম নাটোর
নাটোরের বড়াইগ্রামে ভুল চিকিৎসায় প্রসূতির মৃত্যু এবং ভূয়া ডাক্তার দিয়ে অস্ত্রপচারসহ চিকিৎসা প্রদানের অভিয়োগে একটি ক্লিনিক সিলগাল করে দিয়েছে উপজেলা প্রশাসন। মঙ্গলবার উপজেলার জোনাইল বাজারে জাহাঙ্গীর জেনারেল হাসপাতাল এন্ড ডায়গষ্টিক সেন্টার নামে অভিযান চালায় প্রশাসন। ইউএনও আনোয়ার পারভেজ ওই অভিযান পরিচালা করেন। এর আগে গত সোমবার বিকেলে ওই ক্লিনিকে পারভীন খাতুন (২৮) নামে এক প্রসূতির ভুল অস্ত্রচারে মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় ক্লিনিক পরিচালক জাহাঙ্গীর আলমের বাবা নাজমুল হোসেনকে আটক করা হয়।
বড়াইগ্রাম থানার এএসআই নাসির উদ্দিন জানান, স্থাণীয়দের অভিযোগের ভিত্তিতে জোনাইল বাজারে জাহাঙ্গীর জেনারেল হাসপাতাল এন্ড ডায়গষ্টিক সেন্টারে অভিযান চালানো হয়। এসময় উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. পরিতোষ কুমার উপস্থিত ছিলেন। ক্লিনিকে গিয়ে যথাযথ অপারেশন থিয়েটার পাওয়া যায় নাই। কোন রেজিষ্টার্ড চিকিৎক পাওয়া যায় নাই। আবার সিভিল সার্জনের নিকট থেকে শুধু প্যাথলজিক্যাল পরীক্ষার সনদ নেওয়া হয়েছে। কিন্তু ক্লিনিক পরিচালক জাহাঙ্গীর আলম নিজেই অস্ত্রপচার করেন এমন তথ্য পাওয়া যায়। যদিও জাহাঙ্গীর আলম জেনারেল শিক্ষিত, তার কোন চিকিৎসা বিদ্যা নাই। এদিকে গত সোমবার উপজেলার কুমারখালী গ্রামের নাসির উদ্দিনের স্ত্রী প্রসূতি রোগি পারভীন খাতুনকে ভর্তি করলে জাহাঙ্গীর আলম ভুল অস্ত্রপচার করে । ফলে অতিরিক্ত রক্তক্ষরণে তার মৃত্যু হয়।
তিনি আরও জানান, পরে সেখানে ভর্তিকৃত ১৪জন রোগিকে অন্য হাসপাতাল বা ক্লিনিকে ভর্তি হওয়ার পরামর্শ দিয়ে বের করে দেওয়া হয়। একই সাথে ক্লিনিকটির মূল ফককে তালা ঝুলিয়ে সিল করে দেওয়া হয়।
ইউএনও আনোয়ার পারভেজ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় ছড়িয়ে থাকা ক্লিনিক গুলোতে নিয়মিত অভিযান চালানোর মাধ্যমে সুচিকিৎসা নিশ্চিত করার চেষ্টা অব্যহত থাকবে।
সম্পাদনায়-মঅাকস

কমেন্ট করুন

...

সাম্প্রতিক মন্তব্য

Top