logo
news image

উইং কমান্ডার দীপুর দাফন

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঈশ্বরদী (পাবনা)
টাঙ্গাইলের মধুপুরে বিধ্বস্থ বিমানের উইং কমান্ডার পাবনার ঈশ্বরদীর সন্তান আরিফ আহমেদ দীপু (৪২) মরদেহ শনিবার (২৪ নভেম্বর) হেলিকপ্টার যোগে ঈশ্বরদীতে আনা হয়। আরিফকে বহনকারী বিমান বাহিনীর হেলিকপ্টার সকাল ১১টা ২০ মিনিটে আলহাজ্ব টেক্সটাইল মিলস উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে অবতরণ করে। এ সময় প্রশাসন, পুলিশ ও র‌্যাবের কর্মকর্তা ও স্বজনরা আরিফের মরদেহ গ্রহণ করেন এবং জগন্নাথপুর নিজ গ্রামে নিয়ে যায়। সেখানে দিপুর প্রথম নামাযের জানাযা অনুষ্ঠিত হয়। জানাযা শেষে তাঁকে ঢাকায় নিয়ে যাওয়া হয়। ঢাকায় রাষ্ট্রিয় আনুষ্ঠানিকতা শেষে সামরিক কবরস্থানে দাফন করা হয়।
আরিফ আহমেদ দিপুর মরদেহ গ্রহনের সময় উপস্থিত ছিলেন র‌্যাব-১২ সিরাজগঞ্জের অধিনায়ক উইং কমান্ডার আঃ আহাদ, পাবনার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার গৌতম কুমার, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ঈশ্বরদী সার্কেল) জহুরুল হক, ঈশ্বরদীর ইউএনও আহম্মদ হোসেন ভূইয়া, র‌্যাব-১২ পাবনার সহকারী পুলিশ সুপার প্রণব কুমার সরকার, ঈশ্বরদী থানার ওসি বাহা উদ্দীন ফারুকীসহ প্রশাসন ও পুলিশের উর্দ্ধতন কর্মকর্তারা। নিহত আরিফ আহমেদ দীপু ঈশ্বরদী পৌর এলাকার শেরশাহ রোডের কোবা মসজিদ এলাকার মৃত আফজাল বিশ্বাসের ছেলে। দিপুর পৈতৃক নিবাস ঈশ্বরদীর সলিমপুর ইউনিয়নের জগন্নাথপুর গ্রামে। শুক্রবার বিকেল সাড়ে ৩টায় টাঙ্গাইলের মধুপুর উপজেলার পাহাড় কাঞ্চনপুর বিমান বাহিনী ঘাঁটির টেলকি ফায়ারিং জোনে এ দুর্ঘটনা ঘটে। তার মৃত্যুতে ঈশ্বরদীতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। তাঁর জানাযায় হাজারো মানুষের উপস্থিতি লক্ষ্য করা যায়।

কমেন্ট করুন

...

সাম্প্রতিক মন্তব্য

Top