logo
news image

কুষ্টিয়ায় যুব সম্মেলন অনুষ্ঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদক, কুষ্টিয়া।  ।  
কুষ্টিয়ায় “অংশ গ্রহণ মুলক গণতন্ত্র ও যুব প্রতিনিধিত্ব” বিষয়ক কার্যক্রমের আওতায় দিনব্যাপী যুব সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে।
আলো স্বেচ্ছাসেবী পল্লী উন্নয়ন সংস্থার উদ্যোগে এবং একশন এইড বাংলাদেশের সহযোগিতায় শনিবার (৩ নভেম্বর) শহরের দিশা টাওয়ারের সম্মেলন কক্ষে এ যুব সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।
আলো স্বেচ্ছাসেবী পল্লী উন্নয়ন সংস্থার সভাপতি অধ্যাপক আনোয়ার হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে রাখেন কুষ্টিয়ার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোস্তাফিজুর রহমান। এসময় তিনি বলেন, আজকের তরুণরাই আগামী দিনের কর্ণধর। সমাজ পরিবর্তনে তাদের ভূমিকা অপরিসীম। মাদকের বিরুদ্ধে চলমান যুদ্ধে যুবকদের অংশ নিতে হবে। দেশের টেকসই উন্নয়নে সকল ক্ষেত্রে যুব সমাজকে সম্পৃক্ত করতে হবে। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে বিশিষ্ট লেখক ও গবেষক ডঃ আমানুর আমান বলেন, দেশকে উন্নয়নের শিখরে নিতে যুব সমাজকে কাজে লাগাতে হবে। যুবকরা পরিবর্তনের মূল হাতিয়ার। তাই দেশের অগ্রযাত্রাকে ত্বরান্বিত করতে যুবকদের ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে হবে। কুষ্টিয়া সরকারি মহিলা কলেজের ইংরেজি বিভাগের সহযোগি অধ্যাপক অজয় মৈত্র বলেন, কর্মক্ষেত্রে যুব সম্প্রদায়কে সম্পৃক্ত করণের মাধ্যমে তাদের চাওয়া-পাওয়ার পরির্বত ঘটাতে হবে। এ যুব সমাজকে সেবক হিসেবে কাজ করে উন্নয়নের চরম শিখরে দেশকে এগিয়ে নিতে হবে। সমাজসেবা অধিদপ্তরের সাবেক উপপরিচালক আনোয়ার হোসেন বলেন, চাকুরীর পিছনের যুব সমাজকে না ছুটে নিজেদের কর্মসংস্থান তৈরি করতে হবে। দেশের সীমিত সম্পদকে কাজে লাগিয়ে যুব সমাজকে উন্নয়নের জন্য কাজ করতে হবে। শহর সমাজসেবা কর্মকর্তা কেকে ফজলে হোসেন রাব্বী বলেন কর্মক্ষেত্রে যুব সমাজকে প্রতিষ্ঠিত করতে শিক্ষা ব্যবস্থার পরিবর্তন অপরিহার্য্য। দেশকে এগিয়ে নিতে শৃংখলা জরুরী। তথ্য প্রযুক্তিকে কাজে লাগিয়ে দেশের উন্নয়নকে ত্বরান্বিত করতে যুব সমাজকে কাজ করতে হবে। একশন এইড বাংলাদেশের ডেপুটি ম্যানেজার কোরবান আলী বলেন, যুবকরা দেশের মূল চালিকা শক্তি। তাই যুব সমাজকে ব্যতিরেখে দেশের উন্নয়ন সম্ভব নয়। তাই দেশের উন্নয়নে যুব সমাজকে সকল ক্ষেত্রে সম্পৃক্ত করতে হবে। দৈনিক মাটির পৃথিবী পত্রিকার প্রকাশক ও সম্পাদক এম এ জিহাদ বলেন, দেশের সকল আন্দোলনে যুবকদের অগ্রণী ভূমিকা রয়েছে। দেশকে সামনে দিকে এগিয়ে নিতে যুব সমাজকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে হবে। আলো স্বেচ্ছাসেবী পল্লী উন্নয়ন সংস্থার স্বেচ্ছাসেবক হাফসা খাতুনের পরিচালনায় শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন সংস্থার নির্বাহী পরিচালক ফিরোজ আহাম্মেদ। পরে তারুন্যের ইশতেহারের উপর প্যানেল আলোচক হিসেবে অংশ নেয় যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের উপপরিচালক মাসউদুল হাসান মালিক, সমাজসেবা অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক মুরাদ হোসেন, প্রথম আলোর জেলা প্রতিনিধি তৌহিদী হাসান শিপলু, যুব প্রতিনিধি আল-আমিন সরদার। প্যানেল আলোচনাটি পরিচালনা করেন আলো স্বেচ্ছাসেবী পল্লী উন্নয়ন সংস্থার প্রকল্প সমন্বয়কারী জার্জিস আল মাহমুদ লর্ড। এ সময়ে উপস্থিত ছিলেন মিরপুর উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা নূরুল ইসলাম নান্নু, খোকসা উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা বদিউজ্জামান, কুমারখালী উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা আব্দুল হালিম প্রমুখ।

কমেন্ট করুন

...

সাম্প্রতিক মন্তব্য

Top